মাশরাফিরা বিশ্বকাপে সঙ্গ পাবেন পরিবারের।

0
257

OURBANGLANEWS DESK।

এবার সফরটা অনেক লম্বা। ২০০৭ বিশ্বকাপের পর কখনো এত লম্বা সময় বিদেশে টুর্নামেন্ট খেলতে যাননি মাশরাফি–সাকিব–তামিমরা।

ঢাকা থেকে আয়ারল্যান্ড যাত্রা ১ মে। ১৮ মে থেকে ইংল্যান্ড বিশ্বকাপে ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে উঠলে।

যদি বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে না–ও ওঠে বাংলাদেশ দল, তবু সম্ভব নয় ৬ জুলাইয়ের আগে দেশে ফেরার বিমানে ওঠা।

সব মিলিয়ে দুই মাসের বেশি হবে সফর। গৃহকাতরতা যেন পেয়ে না বসে ক্রিকেটারদের, তাঁদের বিসিবি পরিবার সঙ্গে নিতে অনুমতি দিচ্ছে।

পরিবার-পরিজন ছাড়া লম্বা সময় থাকার বিষয় তো আছেই; এবার ঈদুল ফিতর পড়ে যাচ্ছে টুর্নামেন্টের মধ্যে।

পরিবার থেকে এমন উৎসবে দূরে থাকা সব সময়ই কষ্টের। বোর্ডের আপত্তি নেই ক্রিকেটাররা যদি মনে করেন সফরে তাঁরা পরিবার সাথে রাখবেন।

আজ আকরাম খান বিসিবির ক্রিকেট পরিচালনা প্রধান বললেন, ‘খেলোয়াড়দের পরিবার নিয়ে যাওয়ার অনুমতি সব সময়ই আছে, যদিও আমাদের সময় এটা ছিল না।

টিম ম্যানেজমেন্ট তখন অনেক বেশি সিরিয়াস ছিল। গত বিশ্বকাপেও আমরা খেলোয়াড়দের পরিবার নিয়ে যাওয়ার অনুমতি দিয়েছি। এতে কোনো সমস্যা নেই।’

ক্রিকেটারদের একটা দাবি ছিল দুই সফরের মাঝে দু-চার দিনের জন্য দেশে আসার আয়ারল্যান্ড সফর ও বিশ্বকাপ মিলে সফরটা অনেক লম্বা বলে।

বিসিবি মেনে নিচ্ছে সেটিও। আকরাম বললেন, ‘চার দিনের মধ্যে যাওয়া-আসা করাটা একটা সমস্যা।

তবে কোনো খেলোয়াড় যদি মাঝে দেশে আসতে চায়, আমরা হয়তো “না” করব না।’

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে