বটের ছায়া না হয় না দিলাম,পানির তৃষ্ণা না হয় একটু মেটালাম

0
243

বটের ছায়ায় পথিক তার ক্লান্তি দূর করে, এই কথা এখন অনেকটা ইতিহাস হয়ে গেছেই বলা চলে।

ব্যাস্ত জনবহুল এই রাজধানীতে বটের ছায়ার কথা তো চিন্তা করার বাইরে। পথিকের ক্লান্তি দূর হওয়ার অবস্তা না থাকলেও তৃষ্ণা মেটাতে পানির জোগার হয়তো হতেই পারে।

এমনই এক দৃশ্য দেখা জায় ধানমন্ডির ১৬ নাম্বার রোড় পুরাতন ২৭ নাম্বার রোডের ৪৩ নাম্বার বাড়ির সামনে। পাশাপাশি দুইটি বাড়ির সামনে রাখা ২টি বিশুদ্ধ পানির ফিল্টার। পথচারী, দিন মজুর, না হয় রিকশা চালক, ঐ পথের সবার পানির তৃষ্ণা নিবারকের কাজ করছে এই পানির  ফিল্টার।

একজন সিকিউরিটি গার্ড এর থেকে জানা যায় এই ভবনের মালিক প্রয়াত জনাব মাহফুজ সাহেব এই উদ্যোগ গ্রহন করেন। এখন তার ছেলে সেই উদ্যোগ বজায় রেখেছেন। পথচারীদের জন্য সামান্য পানির ব্যবস্থা হলেও অনেকের জন্য এই বিশুদ্ধ পানিই অনেক বড় বেপার।

এই উদ্যোগকে মহৎ বলে এক পথচারী বলেন,  হয়ত আমারা সকলেই পারি নিজ নিজ বাড়ির সামনে পানির ব্যবস্থা রাখতে পথচারীদের জন্য, দিন মজুর খেটে খাওয়া মানুষের কল্যানে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে