ফণীতে ৪ নিহত, ৬৩ আহত।

0
232

OURBANGLANEWS DESK

০৪ মে শনিবার দুপুরে শাহ কামাল দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’র সর্বশেষ অবস্থা ও প্রস্তুতি নিয়ে সচিবালয়ে সংবাদ সম্মেলনে জানান,

উপকূলীয় জেলা বরগুনার পাথরঘাটায় দুইজন, ভোলা ও নোয়াখালীতে একজন করে মোট চারজন নিহত হয়েছেন এবং ৬৩ জন আহত হয়েছেন ঘূর্ণিঝড় ফণী’র আঘাতে।

ডা. মো. এনামুর রহমান দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী জানান নিহতদের দাফনের জন্য ২০ হাজার টাকা এবং আহতদের প্রয়োজনীয় চিকিৎসা দেয়া হবে।

তিনি বলেন, নেয়া হয়েছিল সার্বিক প্রস্তুতি।

৪ জন মারা গেছেন আশ্রয়কেন্দ্রে না যাওয়ার ফলে।

তিনি আরো জানান, সরকার প্রস্তুত ক্ষয়ক্ষতি পূরণ ও সাহায্য করতে।

ক্ষতিগ্রস্ত এলাকায় বিমান বাহিনীর হেলিকপ্টারে করে সহযোগিতা দেয়া শুরু হবে।

তিনি জানান দ্রুত সাহায্য দেয়া হবে ক্ষয়ক্ষতি নিরুপণ করে।

তবে, সারা দেশে দুই দিনে ঘূর্ণিঝড় ফণীর প্রভাবে ঝড় ও বজ্রপাতে মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে ১৬ জনের।

৩ মে শুক্রবার দুপুর ১২টা থেকে ৪ মে শনিবার দুপুর ১২টা পর্যন্ত এ মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে কিশোরগঞ্জ, বাগেরহাট, নেত্রকোনা, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, বরগুনা, নোয়াখালী, ভোলা, লক্ষ্মীপুর ও পটুয়াখালীতে।