ডিজলাইকের বন্যায় নোবেলের তামাশা

0
347

ডিজলাইকের বন্যায় নোবেলের তামাশা

কলকাতার একটি গানের রিয়েলিটি শোতে অংশ নিয়ে দর্শক প্রিয়তা পায় বাংলাদেশের ছেলে মাইনুল আহসান নোবেল। তাকে বুক ভরা ভালোবাসা দিয়ে গ্রহন করে নেয় এদেশের সঙ্গীতপ্রেমীরা।

দর্শক প্রিয়তা পাওয়ার সাথে সাথে আলচনায় আসেন নোবেল। বর্তমানে বাংলাদেশে সঙ্গীত জগতের এক বিতর্কিত নাম মাইনুল আহসান নোবেল।

তার এই বিতর্কিত হওয়ার প্রধান কারণ বাংলাদেশের সঙ্গীত গুরুদের অপমান করা। নোবেল বাংলাদেশের যেসব সঙ্গীত গুরুদের গান গেয়ে পরিচিতি পেয়েছিলেন সামান্য জনপ্রিয়তা পেয়ে তাদেরই অপমান করেছেন।

এ ঘটনায় চুপ থাকেন নি সঙ্গীতপ্রেমীরা। কারণ আমাদের মিউজিক ইন্ডাস্ট্রির ইতিহাস ঠুনকো নয়। তার এ মন্তব্যে তাই সমালোচনার ঝড় উঠে।

বিতর্কিত কর্মকাণ্ডের কারণে তাকে প্রশাসনের জেরার মুখে পড়তে হয়। শেষ পর্যন্ত ক্ষমা চেয়ে ওই যাত্রায় রক্ষা পান।

এর পরই প্রকাশ হয় তার প্রথম মৌলিক গান ‘তামাশা’। নোবেলের নিম্নমানের এই ভিডিও গানটিকে ছুঁড়ে ফেলেছেন শ্রোতারা।

মুক্তির পর ২ দিনে ১২,১৩,২৬৫ জন দেখেছে তার এই গান। কিন্তু আশ্চর্যের বিষয় হলো এই সময়ে লাইকের চেয়ে ডিজলাইকের সংখ্যা কয়েকগুন বেশী।

২ দিনে মাত্র ৩৩ হাজার লাইকের বিপরীতে ডিজলাইক পড়েছে ৩ লাখ ৯ হাজারের বেশি। আর মন্তব্যে তিরস্কার করেছেন অসংখ্য মানুষ।

সঙ্গীতপ্রেমীরা মনে করছেন, অপছন্দের গানের নতুন রেকর্ড গড়তে যাচ্ছে নোবেলের তামাশা।

সম্প্রতি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির নামে কুৎসা ছড়ানোর অভিযোগে নোবেলের বিরুদ্ধে ত্রিপুরার এক যুবক মামলা মামলা করেছেন। জানা গেছে, ভারতে গেলেই তাকে গ্রেপ্তার করা হবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে