ক্রাইস্টচার্চে হামলায় নিহতদের শ্রদ্ধার ব্যানার খুলে ফেলার নির্দেশ।

0
246

OURBANGLANEWS DESK।

রাগবি ম্যাচ, অনুষ্ঠিত হয় সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে। সেখানে সমর্থকেরা ব্যানার টাঙিয়েছিলেন ক্রাইস্টচার্চে সন্ত্রাসী হামলায় হতাহত ব্যক্তিদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে।

সে ব্যানার, মাঠের নিরাপত্তাকর্মীরা খুলে ফেলার নির্দেশ দিলে টুইটারে এর প্রতিবাদ জানান সমর্থকেরা ।

গোটা বিশ্ব ক্রাইস্টচার্চে মসজিদের ভয়াবহ সন্ত্রাসী হামলায় ধাক্কা খেয়েছিল। প্রায় সবাই অবস্থান নিয়েছিলেন দৃঢ়ভাবে সন্ত্রাসের বিপক্ষে পাশাপাশি সহমর্মিতা জানান হতাহত ও তাঁদের পরিবারের প্রতি।

বাংলাদেশ ক্রিকেট দলও অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচেছিল সেই হামলা থেকে। সারা দুনিয়াব্যাপি চলছে সবাই হতাহত ব্যক্তিদের প্রতি সহমর্মিতা জানিয়েছেন, করেছেন হামলার তীব্র নিন্দা। কিন্তু অন্যরকম অভিজ্ঞতা হয়েছে নিউজিল্যান্ডের রাগবি দল ক্রুসেডারস সমর্থকদের।

সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে তারা একটি ব্যানার টাঙিয়েছিল সন্ত্রাসী হামলায় হতাহত ব্যক্তিদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে। মাঠের নিরাপত্তাকর্মীরা নির্দেশ দেন সে ব্যানার সরিয়ে ফেলার।

গত ২৩ মার্চ রাতে ক্রুসেডারস, নিউজিল্যান্ডের রাগবি দল প্রথম মাঠে নামে। ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে ভয়াবহ সন্ত্রাসী হামলায় ৫০ জন নিহত হন, আহত হয় আরও অর্ধশত।

ক্রুসেডারস সমর্থকেরা হতাহত ও তাঁদের পরিবারের প্রতি শ্রদ্ধা ও সমবেদনা জানিয়ে দুটি ব্যানার টাঙিয়েছিলেন গ্যালারিতে।

ব্যানারে দুটিতে লেখা ছিল ‘ক্রাইস্টচার্চ স্ট্রং #লাভওভারহেইট এবং কিয়া কাহা ক্রাইস্টচার্চ।’ দলটির সমর্থকদের সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডের নিরাপত্তাকর্মীরা নির্দেশ দেন ব্যানার দুটো খুলে ফেলার। তাঁরা মেনে নিতে পারেননি ব্যাপারটি।

তাঁরা নিজেদের টুইটার পেজে প্রতিবাদ জানিয়ে লেখে, ‘এসসিজি নিরাপত্তাকর্মীরা এই মাত্র ব্যানার খুলে ফেলার নির্দেশ দিলেন, ক্রাইস্টচার্চ হামলায় হতাহত ব্যক্তিদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে তা টাঙানো হয়েছিল।

কিছু সময় আছে, যখন খেলার চেয়ে কিছু ব্যাপার বড় হয়ে ওঠে। এটা তেমন কিছুই ছিল এবং তোমরা (নিরাপত্তাকর্মীরা) ভুল করলে।’

সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডের ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, সিডনি ক্রিকেট ও স্পোর্টস ট্রাস্ট লেখা কিংবা ছবিসংবলিত যেকোনো ব্যানারকে মনে করেন আক্রমণাত্মক আর বৈষম্যমূলক।

তবে হতাহত ব্যক্তিদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়েছে নিজেদের মতো করেই। মাঠে উপস্থিত সমর্থকেরা, পাশাপাশি হেঁটেছেন হাতে হাত ধরে ক্রুসেডারস ও ওয়ারাতাহাস (অস্ট্রেলিয়ার রাগবি দল) সমর্থকেরা। তাঁরা এরপর নীরবতাও পালন করেন গোলাকার বৃত্ত বানিয়ে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে