কলেজ শিক্ষকের মরদেহ উদ্ধার।

0
353

OURBANGLANEWS DESK।

পুলিশ ২৭ এপ্রিল শনিবার বিকেলে কুড়িগ্রাম রাজারহাট উপজেলা সদরের খুলিয়াতারি এলাকার বাড়ি থেকে ইন্দ্রজিত সরকার (৫৪) নামের এক কলেজ শিক্ষকের মরদেহ উদ্ধার করেছে।

তার মরদেহ ঘরের জানালার গ্রিলের সাথে গামছা দিয়ে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় ছিল।

তিনি কুড়িগ্রাম জেলা শহরের মজিদা আদর্শ ডিগ্রি কলেজের হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের প্রধান শিক্ষক ছিলেন।

পরিবারের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে ঘটনার সময় বাড়িতে কেউ ছিল না।

নাজিমখান বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে তার স্ত্রী সুচিত্রা সরকার শিক্ষকতা করেন। তিনি সেখানে ছিলেন।

পুত্র শুভ্র সরকার ঢাকার একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে লেখাপড়া করে।

২৬ এপ্রিল শুক্রবার বাড়িতে আসে। তবে সে ঘটনার সময় বাড়িতে ছিলনা।

তৃতীয় শ্রেণি পড়ুয়া কন্যা স্বর্ণা সরকার স্কুল থেকে ফিরে পিতাকে গ্রিলের সাথে ফাঁস লাগানো দেখে চিৎকার করলে প্রতিবেশী

ও আশেপাশের লোকজন ছুটে আসেন। পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।

প্রতিবেশীরা জানিয়েছেন, ২৬ এপ্রিল শুক্রবার পুত্র শুভ’র বাড়িতে আসার পর থেকে তার সাথে পিতার মনোমালিন্য চলছিল।

তবে কি বিষয়ে মনোমালিন্য হয়েছিল তা কেউ বলতে পারেননি।

এ প্রসঙ্গে কৃষ্ণ কুমার সরকার রাজারহাট থানার অফিসার ইনচার্জ জানান, মৃত ইন্দ্রজিত সরকারের ভাই সঞ্জীব সরকার একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করছেন।

২৮ এপ্রিল রোববার তার মৃত্যুর প্রকৃত কারণ নির্ণয়ে কুড়িগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের মর্গে লাশের ময়নাতদন্ত করা হবে।