করোনা চিকিৎসার গবেষণার ফল খুঁজছে হ্যাকাররা

0
371

করোনা চিকিৎসার গবেষণার ফল খুঁজছে হ্যাকাররা

করোনাভাইরাস প্রতিরোধর উপায় নিয়ে গবেষণা চালাচ্ছেন বিশ্বের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান। সারা বিশ্বের মতোই সাইবার যোদ্ধারাও তাকিয়ে রয়েছে করোনাভাইরাস নিয়ে চালানো এইসব গবেষণার দিকে। কোভিড-১৯ বা করোনা ভাইরাসের চিকিৎসা সংক্রান্ত গবেষণার তথ্য পেতে তারা একের পর এক প্রতিষ্ঠানে হামলা চালাচ্ছে।
সাইবার যোদ্ধারা হন্যে হয়ে খুঁজছে করোনা গবেষণার ফল। সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় তদন্ত সংস্থার (এফবিআই) এক জ্যেষ্ঠ সাইবার নিরাপত্তা কর্মকর্তা জানান, ‘বিদেশি সরকারি মদদপুষ্ট হ্যাকাররা করোনা চিকিৎসার গবেষণায় যুক্ত প্রতিষ্ঠানে হামলা চালাচ্ছে’।

অ্যাসপেন ইনস্টিটিউট আয়োজিত এক অনলাইন প্যানেলের আলোচনায় এফবিআইয়ের উপসহকারী পরিচালক টনিয়া উগোরেটজ জানান, ‘জাতীয় গোয়েন্দা সংস্থা সম্প্রতি রাষ্ট্র মদদপুষ্ট হ্যাকারদের বিভিন্ন স্বাস্থ্যসেবা ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানে উঁকি দিতে দেখেছেন। আমরা অবশ্যই সংস্থাগুলোর কয়েকটিতে পুনরায় সংযোগের ক্রিয়াকলাপ এবং কিছু অনুপ্রবেশ দেখেছি, বিশেষ করে যেগুলোতে কোভিড-সম্পর্কিত গবেষণায় কাজ করার জন্য চিহ্নিত করা হয়েছে’।

উগোরেটজ বলেন, ‘চিকিত্সা বা কোনো সম্ভাব্য ভ্যাকসিন নিয়ে কাজ করা সংস্থাগুলো জনসম্মুখে তাদের ফল প্রকাশ করবে বলে আশা করা যায়। তবে, দুঃখজনক হলো অন্যান্য দেশ এসব গবেষণার নামে কি হচ্ছে তা জানার চেষ্টা চালাচ্ছে এমনকি এসব প্রতিষ্ঠানের তথ্য চুরি করা চেষ্টা করছে’।

রাষ্ট্রীয় মদদপুষ্ট হ্যাকাররা আগে থেকেই বায়োফার্মাসিউটিক্যাল শিল্পে হামলা চালিয়ে আসছিল। তবে করোনাভাইরাস পরিস্থিতির কারণে হামলা অনেক বেড়ে গেছে। তবে কোন কোন দেশ থেকে হামলা চালানো হচ্ছে এ ব্যাপারে কোন তথ্য তিনি প্রকাশ করেননি। এছাড়া কোন কোম্পানি আক্রমণের শিকার হয়েছে তাও প্রকাশ করা হয়নি।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, ‘গত মাসে কয়েকটি দিক বিবেচনায় যুক্তরাষ্ট্রসহ বিভিন্ন দেশে বড় বড় করপোরেশনে দ্বিগুণ হারে আক্রমণ করেছে সাইবার দুর্বৃত্তরা।
সফটওয়্যার ও নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠান ভিএমওয়্যার কার্বন ব্ল্যাকের তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বের বিভিন্ন দেশের সরকার করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে ব্যস্ত থাকায় মার্চ মাসে র‌্যানসমওয়্যার আক্রমণ তার আগের মাসের তুলনায় ১৪৮ শতাংশ বেশি’।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে